ফোনের গতি কমে গেলে যা করবেন? আসুন জেনে নিই সেগুলো।

আসসালামুআলাইকু, সবাই কেমন আছেন।আশা করি সবাই ভালো আছেন।আমি আমিও আল্লাহর রহমতে আপনাদের দোয়াই ভালো আছি।তো বন্ধুরা বারে বারের মতোই আজকে আপনাদের সামনে একটা আর্টিকেল নিয়ে হাজির হয়ছি।আজ এই আর্টিকেলে আমি আলোচনা করবো আপনার এন্ড্রয়েড ফোনের গতি কমে গেলে আপনি ফোন না বদলিয়ে কিছু টেকনিক ফলো করলে পেতে পারেন আপনার পুরনো ফোনে নতুনের মতো গতি।
তো চলোন কথা না বাড়িয়ে শুরু করা যাক।

স্মার্টফোনের বয়স যতই বাড়ে, ততই গতি কমে যায়। শুধু এর জন্যেই ফোন বদলানোর প্রয়োজন নেই। কিছু কোশল অবলম্বন করলেই স্মার্টফোনে পাওয়া যাবে নতুনের মতো গতি। আসুন জেনে নিই সেগুলো:-

অপারেটিং সিস্টেম আপডেট:

অপারেটিং সিস্টেমের নতুন সংস্করণ আসার সঙ্গে সঙ্গেই সবার উচিত ওএস আপডেট করে নেয়া। এতে ফোন থাকবে গতিময়। কেননা ফোনের ওএসে বিভিন্ন সময় নানা রকমের বাগ ধরা পড়ে। তখন ফোনে ত্রুটি দেখা যায়। পুরনো ওএস বাগমুক্ত করতে নতুন সংস্করণ আনা হয়। নিঃসন্দেহে এটি ফোনের গতি বাড়াবে।

ব্যাকগ্রাউন্ড অ্যাপ:

মোবাইলের ওএসে কিছু অ্যাপ সবসময় নিজ থেকেই ব্ল্যাকগ্রাউন্ডে চালু থাকে, যা কিছুক্ষণ পরপরই অটোরিফ্রেশ ও আপডেট হয়। এর মধ্যে ফেসবুকের মতো সোশ্যাল মিডিয়ার অ্যাপগুলো উল্লেখযোগ্য। এমন ক্ষেত্রে ফোনের সেটিংস থেকে রানিং অ্যাপ্লিকেশন অপশনে গিয়ে অপ্রয়োজনীয় অ্যাপগুলোর ব্যাকগ্রাউন্ডের কাজ বন্ধ করে দিতে হবে।

অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ:

অনেকের মোবাইল প্রচুর পরিমাণে অ্যাপ ইনস্টল করে রাখেন। এমনকি অনেক অ্যাপ থাকে যেগুলো একবারের পর আর প্রয়োজন পড়ে না। এমন অনেক অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ ইনস্টলের ফলে ফোনের ইন্টার্নাল মেমোরি কমে যায় ও র‌্যামের ওপর চাপ পড়ে।

লাইভ ওয়ালপেপার:

স্মার্টফোনে লাইভ ওয়ালপেপার ফোনের সৌন্দর্য বাড়ায় ঠিকই তবে গতি কমিয়ে দেয় অনেকাংশেই। চেষ্টা করুন যথাসম্ভব লাইভ ওয়ালপেপার ব্যবহার না করতে। এতে ব্যাটারিও সাশ্রয় হবে।

ইন্টারনাল স্টোরেজ:

ফোনের ইন্টার্নাল স্টোরেজ খালি রাখলে দারুণ গতি পাওয়া যাবে। এ ক্ষেত্রে অপ্রয়োজনীয় ডাউনলোড ফাইল, ব্রাউজারের হিস্ট্রি, অনেকদিন আগের ছবি ইত্যাদি সরিয়ে মেমোরি খালি রাখা উচিত।

লাইট ভার্সন অ্যাপ ব্যবহার:

ফেসবুক, টুইটার, মেসেঞ্জার এবং কিছু ব্রাউজার আছে অত্যন্ত জনপ্রিয় এ অ্যাপগুলোর পাশাপাশি বহুসংখ্যক অ্যাপের লাইট ভার্সন বর্তমানে গুগল প্লে স্টোরে পাওয়া যায়। অ্যাপের লাইট ভার্সন সাধারণত ফোনের গতির দিকে লক্ষ্য রেখেই ডিজাইন করা হয়। এতে ফোনের গড়িও বাড়বে, ডাটা কম খরচ হবে।

হোম স্ক্রিন ক্লিন:

অনেকের মোবাইলে প্রচুর পরিমাণে ওয়াইগেট ব্যবহার করতে দেখা যায়। কিন্তু অনেকেই জানেন না যে অতিরিক্ত ওয়াইগেট আপনার ডিভাইসের গতি কমিয়ে দিতে পারে। অনেক বেশি ওয়াইগেট হোমে থাকলে তা র‌্যামের ওপর চাপ ফেলে। এতে ফোনের গতি কিছুটা হলেও কমে যায়।

যারা আমার আগের পোস্ট গুলি মিস করছেন তারা নিচ থেক ↓ দেখে আসতে পারেন আমার আগের পোস্ট গুলি।

আরোও পড়ুনঃ

যে অ্যাপ ও ওয়েবসাইটগুলো চীনে নিষিদ্ধ। না দেখলে মিস করবেন

হাজার হাজার টাকার ৫৪টি প্রিমিয়াম ওয়ার্ডপ্রেস থীম ফ্রিতে ডাউনলোড করে নিন – অফিশিয়াল ভাবে!!!

কম্পিউটার শিক্ষা(MS Excel) A to Z স্ক্রিনশট সহ।পর্ব 2 : MS Excel এ গুণ ও ভাগ
কম্পিউটার শিক্ষা(MS Excel) A to Z স্ক্রিনশট সহ।পর্ব ১:এক্সেলে যোগ ও বিয়োগ করা।

Elimentor Pro সেরা ওয়েবসাইট কাস্টমাইজার এবং ইডিটর প্লাগইন বিনামূল্যে ডাউনলোড

স্মার্ট ফোনের নেভেগেশন বারে ছবি যোগ করে বন্ধুদেরকে চমকে দিন।

Logo Design করতে ডাউনলোড করে নিন 59 ডলার মূল্যের EximiousSoft Logo Designer
আপনার Android Phone যেভাবে বেশি দিন ব্যবহার করবেন। ফোনের কোন সমস্যা হবে না

এখন থেকে স্কিনশট ক্যাপচার করা মাত্রই স্কিনশট এ যুক্ত হবে মোবাইল ফ্রেম।

তো বন্ধুরা আজ এখানেই শেষ করলাম।সবাই ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন।

আরও পড়ুন

Leave a Comment